পাঁচলায় সরকারি উদ্যোগে লাগানো চারা গাছ, উপড়ে ফেলার অভিযোগ অঞ্জাতপরিচয় দুস্কৃতিদের বিরুদ্ধে

নিজস্ব সংবাদদাতা : স্থানীয় প্রশাসন ও একটি বেসরকারি সংস্থার উদ্যোগে লাগানো হয়েছিল চারা গাছ। রাতের অন্ধকারে সেই গাছ উপড়ে ফেলে দেওয়ার অভিযোগ উঠলো অঞ্জাতপরিচয় দুস্কৃতিদের বিরুদ্ধে। ঘটনাটি ঘটেছে পাঁচলার দেউলপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের নতুন রাস্তা এলাকায়। স্থানীয় মানুষের অভিযোগ পুলিশ ঘটনাস্থলে এলেও কোনো রকম সদর্থক ভুমিকা গ্রহণ করেনি।

জানা গেছে দেউলপুর আপ টু ডেট ক্লাবের কাছ থেকে চাপড়ার পাড় পর্যন্ত প্রায় দেড়শো টি বিভিন্ন প্রজাতির গাছ লাগানো হয়েছিল মাস চারেক আগে। গাছ গুলিকে বাঁচাতে বেড়া দিয়ে ঘিরেও দেওয়া হয়েছিল। কিন্তু সম্প্রতি স্থানীয় বাসিন্দারা দেখেন প্রায় পঞ্চাশটি চারা গাছ গুলি শুকিয়ে যাচ্ছে। ভালো ভাবে পর্যবেক্ষণ করলে দেখা যায় গাছ গুলিকে উপড়ে ফেলা হয়েছে।

পাশাপাশি ভেঙে দেওয়া হয়েছে কয়েকটি চারাগাছ। এরপরেই ক্ষোভে ফেটে পড়েন স্থানীয় বাসিন্দারা। সোশ্যাল মিডিয়ার ওঠে প্রতিবাদের ঝড়। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে আসে পাঁচলা থানার পুলিশ। স্থানীয় বাসিন্দা সুব্রত চক্রবর্তী বলেন এটি খুব নিন্দনীয় ঘটনা। আমরা এর তীব্র প্রতিবাদ করছি।পুলিশ অবিলম্বে এই ঘটনায় যুক্ত দুস্কৃতিদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করুক।

এলাকার প্রধান শিখা বাগ বলেন একটি স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা ও পঞ্চায়েতের তরফ থেকে এই গাছ গুলি লাগানো হয়েছিল। মেহগনি, শিশু সহ কিছু বিদেশী গাছ‌ও লাগানো হয়েছিল। আমরা পুলিশকে ঘটনাটি জানিয়েছি। পাশাপাশি আমরা নিজেরাও বিষয়টি তদন্ত করে দেখছি।

Author: নিজস্ব সংবাদদাতা