কাজ হারিয়ে উলুবেড়িয়ায় রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থার কারখানার সামনে সপরিবারে ধর্নায় বসলেন কর্মী

নিজস্ব সংবাদদাতা : কাজ হারিয়ে রাষ্ট্রায়ত্ত গ্যাস রিফিলিং সেন্টারের সামনে সপরিবারে ধর্ণায় বসলেন এক চুক্তিভিত্তিক কর্মী। শুক্রবার ঘটনাটি ঘটেছে গ্রামীণ হাওড়ার উলুবেড়িয়া থনার বীরশিবপুর এলাকায়। সূত্রের খবর, গৌতম হাজরা নামক এক কর্মী মাস ছ’য়েক আগে বীরশিবপুরে ১৬ নং জাতীয় সড়ক লাগোয়া একটি রাষ্ট্রায়ত্ত গ্যাস রিফিলিং সেন্টারে চুক্তিভিত্তিক কর্মী হিসাবে কাজে যোগ দেন।

অভিযোগ, মাস ছ’য়েক কাজ পর হঠাৎই কোনো কারণ ছাড়াই ওই কর্মীকে কাজ থেকে বসিয়ে দেওয়া হয়। কারখানার একাধিক উচ্চপদস্থ কর্তাকে জানিয়েও কোনো লাভ হয়ন বলে অভিযোগ। তাই বাধ্য হয়েই অবিলম্বে কাজ ফিরিয়ে দেওয়ার দাবিতে শুক্রবার তিন সন্তান, স্ত্রী’কে নিয়ে কারখানাটির মূল গেটের কাছে ধর্ণায় বসেন গৌতম হাজরা। তাঁর দাবি, অবিলম্বে তাকে কাজে ফেরাতে হবে। নাহলে সপরিবারে অনশন চালিয়ে যাওয়ার হুঁশিয়ারি দিয়েছেন কাজ হারানো এই ব্যক্তি।

মূল গেটে ধর্ণায় বসায় কারখানায় লরি ঢুকতে বাধা পায়। ফলে কিছুক্ষণের মধ্যেই গাড়ির লাইন পড়ে যায়। রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থার কারখানাটির ম্যানেজার জানান, অনেক কর্মী কন্ট্রাক্টরের মাধ্যমে কাজ করেন। কন্ট্রাক্ট শেষ হয়ে গেলে কন্ট্রাক্টরও থাকেনা। উনি কবে কাজ করতেন বা কোন কন্ট্রাক্টরের আন্ডারে কাজ করতেন আমাদের কিছু জানা নেই। আমরা ওনাকে অনুরোধ করেছিলাম কন্ট্রাক্টরের সাথে কথা বলতে।” তিনি আরও জানান, “এটা সংরক্ষিত এলাকা। এখানে এভাবে বসে থাকা যায়না। কিন্তু, উনি আমাদের কথা শোনেননি। আমরা বিষয়টি প্রশাসনকে জানিয়েছি।”

Author: নিজস্ব সংবাদদাতা