পাঁচলার গ্রামে সরকারি পরিষেবা থেকে বঞ্চিত সাধারণ মানুষ, পক্ষপাতিত্বের অভিযোগ

নিজস্ব সংবাদদাতা : মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বাংলার মানুষের স্বার্থে বিভিন্ন জনহিতকর প্রকল্প চালু করেছেন। মানুষের দ্বারে এই সমস্ত প্রকল্পের সুবিধা পৌঁছে দিতে দফায় দফায় ‘দুয়ারে সরকার’ কর্মসূচি অনুষ্ঠিত হচ্ছে। কিন্তু তারপরও সরকারি প্রকল্প থেকে বঞ্চিত সাধারণ মানুষ, এমনটাই অভিযোগ তুলেছেন পাঁচলার বিকি হাকোলা গ্রাম পঞ্চায়েতের কোলে পাড়ার বেশ কিছু মানুষ। এলাকাবাসীর অভিযোগ, লক্ষ্মীর ভান্ডার, আবাস যোজনা, স্বাস্থ্যসাথী সহ সমস্ত কিছু থেকেই তারা বঞ্চিত। তাদের অভিযোগ, বিভিন্ন সরকারি প্রকল্পের সুযোগ-সুবিধা পেতে একাধিকবার দুয়ারে সরকারে গিয়ে ফর্ম জমা করলেও বা পঞ্চায়েতে যোগাযোগ করলেও কোনো সুযোগ-সুবিধা মেলেনি। স্বপ্না কোলে নামক এক গৃহবধূর অভিযোগ, আমরা বিজেপি করি বলে আমরা কিছু পাচ্ছিনা। বিস্তারিত জানতে নীচে পড়ুন...

স্বপ্না দেবী জানান, একাধিকবার স্বাস্থ্যসাথী, আবাস যোজনা এমনকি লক্ষ্মীর ভান্ডারের আবেদন করেও কোনো কিছু তিনি পাননি। শুধু স্বপ্না দেবী নন, একই অভিযোগ করেছেন কোলে পাড়া এলাকার বেশ কিছু মানুষ। তাদের অভিযোগ, শাসকদলের ঝান্ডার তলায় না এসে বিজেপি করাতেই তারা সমস্ত সুযোগ-সুবিধা থেকে বঞ্চিত। এবিষয়ে সমস্ত অভিযোগ অস্বীকার করেন বিকি-হাকোলা গ্রাম পঞ্চায়েতের প্রধান মঞ্জুরা বেগম। তিনি জানান, ব্যাঙ্ক সংক্রান্ত কিছু সমস্যা থাকায় তারা প্রকল্পগুলির সুবিধা পায়নি। তবে পঞ্চায়েতে এলে সবরকম সাহায্যের আশ্বাস দিয়েছেন গ্রাম পঞ্চায়েত প্রধান। পঞ্চায়েত প্রধানের আশ্বাস মতো কোলে পাড়ার মানুষ কবে সরকারি সুযোগ-সুবিধা পান এখন সেটাই দেখার।

Author: নিজস্ব সংবাদদাতা