বাগনানে জাতীয় সড়কের ডিভাইডারে লাগানো গাছে আগুন! প্রতিবাদে সরব পরিবেশকর্মীরা

নিজস্ব সংবাদদাতা : খড়গপুর থেকে ডানকুনি অব্ধি ১৬ নং জাতীয় সড়কের সম্প্রসারণের পাশাপাশি জোর দেওয়া হয়েছে সৌন্দার্যায়নের দিকে। ফলে খড়গপুর ও কোলকাতামুখী দু’টি লেনের ডিভাইডারের ফাঁকা জায়গায় লাগানো হয়েছে বেশ কিছু গাছ। তার মধ্যে দেশীয় গাছ যেমন আছে তেমনই রয়েছে মূল্যবান ও দুষ্প্রাপ্য গাছও।

জানা গেছে, বাগনান মানকুর মোড় থেকে লাইব্রেরি মোড় অব্ধি প্রচুর করবী গাছ লাগানো হয়েছিল। সেই গাছ সময়ের তাল মিলিয়ে বড়ও হয়েছে। গত বছর অব্ধি লাল, সাদা করবী ফুলে ভরেছিল গাছ। মাঝে মাঝে গাছের ডালপালাও কাটা হয়। একটা নির্দিষ্ট মাপের করা থাকে গাছগুলি। অভিযোগ, বৃহস্পতিবার বিকেল পর্যন্ত ঠিক ছিল গাছগুলি।

কিন্তু সন্ধ্যা নামতেই কে বা কারা গাছের গোড়ায় থাকা আগাছায় কেরোসিন ঢেলে আগুন ধরিয়ে দেয়। প্রায় ঘন্টা খানেক ধরে লাগা আগুনের তাপ সহ্য করতে না পেরে ছ-ফুট উচ্চতা বিশিষ্ট করবী গাছগুলো কার্যত ঝলসে গিয়েছে। গাছের গোড়াও পুড়ে গিয়েছে বলে জানা গেছে। যার ফলে কার্যত বেঁচে থাকা অসম্ভব গাছগুলির।

জানা গেছে, কমপক্ষে তিরিশটি গাছ এই ভাবে নষ্ট হয়েছে। বিষয়টি নিয়ে বাগনান-১ নং পঞ্চায়েত সমিতির কর্মাধ্যক্ষ চন্দ্রনাথ বসু জানান,”কাজটি যে বা যারাই করুক না কেন ঠিক করেনি। বড়ো কষ্ট হচ্ছে এই ভাবে গাছ মারা দেখে।” অন্যদিকে, পরিবেশকর্মীরা এই কাজের সঙ্গে যুক্তদের শাস্তির দাবী জানিয়েছেন।

Author: নিজস্ব সংবাদদাতা