তৃণমূল-বিজেপি সংঘর্ষে উত্তপ্ত কাঁকিনাড়া, মাথা ফাটল সাংসদ অর্জুন সিংয়ের

নিজস্ব সংবাদদাতা : রবিবার সকালে ফের তৃণমূল-বিজেপি সংঘর্ষে উত্তপ্ত হয়ে উঠল কাঁকিনাড়া। সংঘর্ষের মাঝে ইটের আঘাতে মাথা ফাটল সাংসদ অর্জুন সিংয়ের। সাংসদের অভিযোগ, বারাকপুরের পুলিশ কমিশনারই আঘাত করেছেন তাঁকে। এখনও থমথমে এলাকা।কার্যত স্তব্ধ কাঁকিনাড়া-ভাটপাড়া চত্বর। বন্ধ দোকানপাট। অর্জুন সিংহের গাড়ি ভাঙচুর করা হয় বলে অভিযোগ।বিজেপি কর্মী সমর্থকদের অভিযোগ, তৃণমূলের কর্মী সমর্থকরা মিছিল করে, বাঁশ, লাঠি হাতে নিয়ে বিজেপির ফিডার রোডের কার্যালয়টি দখল করতে যান। বিজেপি কর্মী সমর্থকরাও বাধা দেন। ফলে কয়েক মিনিটের মধ্যে গোটা এলাকায় দুই দলের কর্মী সমর্থকদের মধ্যে খণ্ডযুদ্ধ বেধে যায়। ঘটনার খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছন ব্যারাকপুরের বিজেপি সাংসদ অর্জুন সিংহ। অভিযোগ, পৌঁছানো মাত্রই তৃণমূল আশ্রিত দুষ্কৃতীরা তাঁর গাড়ি ঘিরে ধরে এলোপাথাড়ি ইট ছুড়তে থাকে।পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে বারাকপুরের পুলিশ কমিশনার মনোজ ভার্মার নেতৃত্বে ঘটনাস্থলে যায় বিশাল পুলিশ বাহিনী। পুলিশের সামনেই হাতাহাতিতে জড়িয়ে পড়ে তৃণমূল ও বিজেপি কর্মীরা।ইটের আঘাতে মাথা ফাটে বারাকপুরের সাংসদ অর্জুন সিংয়ের। অভিযোগ, এরপরই গুলি চালান মনোজ ভার্মা। টিয়ার গ্যাসও ছোঁড়া হয়। বেশ কিছুক্ষণ পর স্বাভাবিক হয় পরিস্থিতি। তবে এখনও থমথমে এলাকা। অর্জুন সিংয়ের বাড়ির সামনে মোতায়েন করা হয়েছে বিশাল পুলিশ বাহিনী। সাংসদের অভিযোগ, ইটের আঘাতে নয়, খোদ কমিশনারই মারধর করেছেন তাঁকে। কলকাতার বাইপাসের ধার একটি বেসরকারি হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়েছে অর্জুন সিংকে সেখানে উপস্থিত হয়েছেন বিজেপি নেতা মুকুল রায় সহ আরও অন্যান্য নেতৃত্বরা।

Author: নিজস্ব সংবাদদাতা