কোটা ফেরত ছাত্রীর দেহে মিলল করোনা, আন্দুলে চাঞ্চল্য, শুরু হয়েছে এলাকা স্যানিটাইজেশনের কাজ

নিজস্ব সংবাদদাতা : গত কয়েকদিন আগে থেকেই দেশের বিভিন্ন স্থানে আটকে থাকা এরাজ্যের পড়ুয়াদের বাংলায় ফেরানো শুরু হয়েছে। ইতিমধ্যেই রাজস্থানের কোটায় আটকে থাকা হাওড়ার বেশ কিছু পড়ুয়াকে ফিরিয়ে আনা হয়েছে। এবার তাদের মধ্যেই মিলল করোনার উপস্থিতি। সূত্রের খবর, কোটা ফেরত সকল পড়ুয়ারই স্বাস্থ্য পরীক্ষা করা হয়। তাদের মধ্যে বেশ কয়েকজনের সোয়াব সংগ্রহ করে পরীক্ষার জন্য পাঠানো হয়। রিপোর্টে করোনা পজিটিভ আসে আন্দুলের মাসিলা গ্রাম পঞ্চায়েত এলাকার এক ছাত্রীর। তারপরই ওই ছাত্রীকে করোনা হাসাপাতালে পাঠানো হয়। এই ঘটনা জানাজানি হতেই চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে আন্দুলের বিভিন্ন এলাকায়। ইতিমধ্যেই স্থানীয় গ্রাম পঞ্চায়েতের পক্ষ থেকে স্থানীয় এলাকা স্যানিটাইজেশনের কাজ শুরু হয়েছে। যদিও স্থানীয় পঞ্চায়েত প্রধানের দাবি, “ওই পড়ুয়া ভিনরাজ্য থেকেই সংক্রামিত হয়ে ফিরেছেন। ওই ছাত্রী আদতে এই এলাকার বাসিন্দা হলেও পড়াশোনার কারণে ভিনরাজ্যেই থাকতেন। গত ১ লা মে বাড়ির ফেরার পর হোম কোয়ারান্টাইনেই ছিলেন। টেস্টে পজিটিভ আসার পরই চিকিৎসার জন্য হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।” পঞ্চায়েত প্রধান আরও জানান, “গ্রামে কোনো আতঙ্ক নেই। সকলেই সতর্ক আছেন। লড়াই রোগের সঙ্গে, রোগীর বিরুদ্ধে নয়।”

Author: নিজস্ব সংবাদদাতা