হাওড়ার আন্দুলে তৃতীয় শ্রেণীর ছাত্রের মৃত্যু ঘিরে ধুন্দুমার কাণ্ড

নিজস্ব সংবাদদাতা : তৃতীয় শ্রেণীর এক ছাত্রের মৃত্যু ঘিরে উত্তেজনা ছড়ালো হাওড়ার আন্দুলের একটি ইংলিশ মিডিয়াম স্কুলে ৷ প্রতিবাদে স্কুলের সামনে বিক্ষোভ দেখাতে থাকে অভিভাবকরা। ঘটনাস্থলে সাঁকরাইল থানার পুলিশ এসে নিয়ন্ত্রণে আনে।আন্দুলের একটি ইংরেজি মাধ্যম স্কুলের তৃতীয় শ্রেণীর ছাত্র সোহম মাইতি ৷ গত ২ অগাস্ট স্কুলে অসুস্থ হয়ে পড়ে। সঙ্গে সঙ্গে স্কুলের পাশের একটি বেসরকারি নার্সিংহোমে ভরতি করা হয় তাকে ৷ স্কুল ছুটির সময় সোহমের অভিভাবকরা জানতে পারেন, তাঁদের সন্তান নার্সিংহোমে ভরতি।অসুস্থতার খবর কেন জানানো হয়নি তা নিয়ে স্কুল কর্তৃপক্ষের কাছে প্রশ্ন তোলেন সোহমের বাবা-মা।

পরে শারীরিক অবস্থার অবনতি হওয়ায় সোহমকে পার্কসার্কাসের একটি বেসরকারি হাসপাতালে ভরতি করেন তাঁরা।৩ আগস্ট সোহমের মৃত্যু হয়।এই ঘটনার প্রতিবাদে মঙ্গলবার সকাল মৃত ছাত্রের পরিবারসহ অন্যান্য অভিভাবকেরা রাস্তা অবরোধ করে বিক্ষোভ দেখাতে থাকে ৷ তাদের অভিযোগ, অসুস্থতার কথা না জানিয়ে কেন সোহমকে নার্সিংহোমে ভরতি করা হল?যদিও স্কুল কর্তৃপক্ষের দাবি সোহম এর বাবা কে ফোন করা হয়েছিল। কিন্তু ফোনে পাওয়া যায়নি। স্কুলের ভিতরে ভাঙচুর চালিয়েছে বলে মৃত ওই ছাত্রের মায়ের বিরুদ্ধে অভিযোগ করছে স্কুল কর্তৃপক্ষ। অবরোধের জেরে আন্দুল রোড বেশ কিছুক্ষণ অবরুদ্ধ হয়ে পড়ে। সাঁকরাইল থানা পুলিশ এসে নিয়ন্ত্রণে আনে।অন্যদিকে ডেথ সার্টিফিকেট অনুযায়ী এনসেফালাইটিসের কারণে মৃত্যু হয়েছে সোহমের।

Author: নিজস্ব সংবাদদাতা

Leave a Reply

Your email address will not be published.